শুক্রবার , ২৯ সেপ্টেম্বর ২০২৩ | ১৪ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
  1. জাতীয়
  2. রাঙামাটি
  3. খাগড়াছড়ি
  4. বান্দরবান
  5. পর্যটন
  6. এক্সক্লুসিভ
  7. রাজনীতি
  8. অর্থনীতি
  9. এনজিও
  10. উন্নয়ন খবর
  11. আইন ও অপরাধ
  12. ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠী
  13. চাকরির খবর-দরপত্র বিজ্ঞপ্তি
  14. অন্যান্য
  15. কৃষি ও প্রকৃতি
  16. প্রযুক্তি বিশ্ব
  17. ক্রীড়া ও সংস্কৃতি
  18. শিক্ষাঙ্গন
  19. লাইফ স্টাইল
  20. সাহিত্য
  21. খোলা জানালা

ইউপি চেয়ারম্যানের সহায়তায় স্বপ্ন পূরণ হলো প্রমিতার

প্রতিবেদক
প্রতিনিধি, মাটিরাঙ্গা, খাগড়াছড়ি
সেপ্টেম্বর ২৯, ২০২৩ ৯:৪৮ অপরাহ্ণ

অনিশ্চয়তা কাটিয়ে অবশেষে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি হবে দুর্গম পাহাড়ী জনপদের মেধাবী শিক্ষার্থী প্রমিতা ত্রিপুরা। পিতৃহীন প্রমিতা ত্রিপুরার বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি যখন অনিশ্চিত হয়ে পড়ে ঠিক তখনই সহায়তার হাত বাড়িয়ে তার পাশে দাঁড়ালেন মাটিরাঙ্গার বড়নাল ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মোহাম্মদ ইলিয়াছ।

শুক্রবার (২৯ সেপ্টেম্বর) দুপুরের দিকে তার কার্যালয়ে মেধাবী শিক্ষার্থী প্রমিতা ত্রিপুরার মা শেফালী ত্রিপুরার হাতে নগদ আর্থিক সহায়তা তুলে দেন বড়নাল ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মোহাম্মদ ইলিয়াছ।

মেধাবী শিক্ষার্থী প্রমিতা ত্রিপুরা খাগড়াছড়ির মাটিরাঙ্গার বড়নাল ইউনিয়নের ২নং ওয়ার্ডের যামিনীপাড়া এলাকার বাসিন্দা প্রয়াত জয় প্রকাশ ত্রিপুরা ও শেফালী ত্রিপুরা’র মেয়ে।

জানা যায়, প্রমিতা ত্রিপুরা তবলছড়ি গ্রীনহিল কলেজ থেকে এ বছর উচ্চ মাধ্যমিক পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হয়। ভর্তির আবেদন করলে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তির জন্য নির্বাচিত হয়। চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ে ইসলামিক স্টাডিস বিষয়ে ভর্তির জন্য নির্বাচিত হলেও আর্থিক সংকটের কারণে ভর্তি অনিশ্চিত হয়ে পড়ে।

বিষয়টি জানার পর অদম্য মেধাবী প্রমিতা ত্রিপুরার মাকে তার কার্যালয়ে ডেকে নগদ আর্থিক সহায়তা তুলে দেন বড়নাল ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মোহাম্মদ ইলিয়াছ। এবং ভবিষ্যতে তার লেখাপড়া চালিয়ে যেতে যে কোন সহযোগিতারও আশ্বাস দেন।

বড়নাল ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মোহাম্মদ ইলিয়াছ এর সহযোগীতা পেয়ে তার প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করে প্রমিতা ত্রিপুরা বলে, চেয়ারম্যান আমার পাশে না দাঁড়ালে আমার লেখাপড়া এখানেই থেমে যেতো। আমি তার কাছে আজীবন ঋনী হয়ে গেলাম।

বড়নাল ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মোহাম্মদ ইলিয়াছ বলেন, জনগন আমাকে প্রত্যাশা নিয়ে নির্বাচিত করেছে। জনপ্রত্যাশার অংশ হিসেবেই আমি মেধাবী শিক্ষার্থীর পাশে দাড়িয়েছি। বড়নাল ইউনিয়নে একটি মেধাবী সন্তানও যেন পড়াশুনা থেকে ঝড়ে না পড়ে সেটি নিশ্চিত করতে আমি সবসময় মেধাবীদের পাশে থাকবে।

সর্বশেষ - আইন ও অপরাধ

%d bloggers like this: