বৃহস্পতিবার , ৭ ডিসেম্বর ২০২৩ | ১লা আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
  1. জাতীয়
  2. রাঙামাটি
  3. খাগড়াছড়ি
  4. বান্দরবান
  5. পর্যটন
  6. এক্সক্লুসিভ
  7. রাজনীতি
  8. অর্থনীতি
  9. এনজিও
  10. উন্নয়ন খবর
  11. আইন ও অপরাধ
  12. ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠী
  13. চাকরির খবর-দরপত্র বিজ্ঞপ্তি
  14. অন্যান্য
  15. কৃষি ও প্রকৃতি
  16. প্রযুক্তি বিশ্ব
  17. ক্রীড়া ও সংস্কৃতি
  18. শিক্ষাঙ্গন
  19. লাইফ স্টাইল
  20. সাহিত্য
  21. খোলা জানালা

ভুমি বেদখল চেষ্টার প্রতিবাদে লংগদুতে সড়ক নৌ পথ অবরোধ ও বাজার বয়কট ঘোষণা

প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক, রাঙামাটি।
ডিসেম্বর ৭, ২০২৩ ৪:৫১ অপরাহ্ণ

রাঙামাটির লংগদুতে দয়াল চন্দ্র চাকমার রেকর্ডীয় জমি বেদখলের প্রতিবাদে এবং উক্ত জমি বেদখলমুক্ত করার দাবিতে আগামী ১০ ডিসেম্বর সড়ক ও নৌপথ অবরোধ এবং ১১ ডিসেম্বর ভেইবোনছড়া বাজার বয়কটের ডাক দিয়েছে ইউপিডিএফ।

৭ ডিসেম্বর বৃহস্পতিবার লংগদু ভূমি রক্ষা কমিটি কর্তৃক আয়োজিত এক বিক্ষোভ সমাবেশ থেকে এ ঘোষণা দেয়া হয়।

উক্ত সমাবেশে বক্তারা ভূমি বেদখলের তীব্র নিন্দা জানিয়ে বলেন, দয়াল চন্দ্র চাকমার যে জমি বেদখল করা হচ্ছে তা রেকর্ডিয় জমি। দখলপত্র থাকার পরও আমরা আমাদের জমি ভোগ দখল করতে পারছি না। কিছুদিন আগে সমীর চাকমা নামে অন্য একজনের জমিও সেটলাররা জোরপূর্বক দখল করার চেষ্টা করেছে।

ভূমি রক্ষা কমিটির নেতৃবৃন্দ ভূমি বেদখলকারী সেটলারদের প্রতি প্রশাসনের পক্ষপাতিত্বের অভিযোগ তুলে বলেন, ভূমি বেদখলকারীদের বিরুদ্ধে প্রশাসনের পক্ষ থেকে কোন ধরনের পদক্ষেপ নেয়া হয় না। শুধু তাই নয়, প্রশাসন বরং তাদের
সহায়তা দিয়ে থাকে। অন্যদিকে ভূমি মালিককে দেয়া হয় শাস্তি। সেটেলাররা জোর করে জমি দখল করতে না পারলে ভূয়া দলিল তৈরি করে আদালতে মামলা দায়ের করে। তখন আদালত থেকে নিষেধাজ্ঞা জারী করা হলে পাহাড়ি ভূমি মালিকরা আর তার জমিতে যেতে পারে না। কিন্তু সেটলাররা ঠিকই
আদালতের নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে উক্ত জমিতে ঘর তৈরি করে।
দয়াল চন্দ্র চাকমার ক্ষেত্রেও তাই হয়েছে উল্লেখ করে তারা বলেন, ২০২১ সালে মো: কামাল নামে এক সেটলার প্রথম উক্ত জমি বেদখলের চেষ্টা চালায়। এতে বাধা দেয়া হলে সে রাঙামাটির আদালতে মামলা দায়ের করে। আদালত উভয়পক্ষের
বক্তব্য শুনে উক্ত ভূমি বিষয়ে স্ট্যাটাস কু আরোপ করেন। কিন্তু আদালতের উক্ত আদেশকে বৃদ্ধাঙ্গুলি দেখিয়ে কামাল গত ৫ ডিসেম্বর উক্ত জমিতে একটি খুপড়ি ঘর নির্মাণ করে।’
তারা বলেন, পার্বত্য চট্টগ্রামে ভূমি বেদখলের মাত্রা এখন এমন পযায়ে পৌঁছে গেছে যে, পাহাড়ি ভূমি মালিকদের সব সময়
তাদের জমি বেদখল হওয়ার ভয়ে থাকতে হয়। কখন কার জমি কেড়ে নেয়ার জন্য সেটলাররা হাত দেয় তার কোন নিশ্চয়তা
নেই।

বক্তারা অবিলম্বে দয়াল চন্দ্র চাকমার জমি বেদখলমুক্ত করা এবং ভূমি দস্যু মো: কামালকে উপযুক্ত শাস্তি প্রদানের দাবি জানান।
ভুমিরক্ষা কমিটির সম্পাদক বুদ্ধ কুমার চাকমা আগামী রোববার (১০ ডিসেম্বর) লংগদু উপজেলাব্যাপী সড়ক ও নৌপথ অবরোধ
এবং সোমবার (১১ ডিসেম্বর) ভেইবোন ছড়া বাজার বর্জন কর্মসূচী সফল করার জন্য সংশ্লিষ্ট সকলের প্রতি আহব্বান জানান।

সর্বশেষ - আইন ও অপরাধ

আপনার জন্য নির্বাচিত
%d bloggers like this: